1. admin@amarsylhetnews.com : admin2020 :
  2. zoshim98962@gmaiil.com : আমার সিলেট ডেস্ক : আমার সিলেট ডেস্ক
  3. amarsylhetnews@gmail.com : আমার সিলেট নিউজ : আমার সিলেট নিউজ
  4. editor@amarsylhetnews.com : Amar SylhetNews : Amar SylhetNews

    শুক্রবার, ৩০ জুলাই ২০২১, ০৪:৩২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
হবিগঞ্জ শহরের কালীবাড়ি ক্রস রোডের বাসিন্দা তন্বী রায় এর পরলোকগমন সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলার প্রথম আইসিটি জেলা এম্বাসেডর হলেন মনির হোসেন নবীগঞ্জে ঐতিহ্য বাহী ইনাতগঞ্জ বাজার জামে মসজিদের ৩১ বছরের বিরোধ পরিসমাপ্তি চুনারুঘাটে সৈয়দ লিয়াকত হাসান বড় ভাইয়ের ইন্তেকাল বিশিষ্ট লেখক অধরা আলো ”সহ সাধারণ সম্পাদক নতুন কুঁড়ি সাহিত্য সম্ভার”র মনোনীত চুনারুঘাটের চা বাগানে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কাজ করছে শ্রমিকরা চুনারুঘাটে বজ্রপাতে মৃত ব্যক্তির পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান যুক্তরাষ্ট্রে ঈদ পূর্ণমিলনীতে হবিগঞ্জবাসীর মিলনমেলা হবিগঞ্জে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ বিক্রির অপরাধে দুই ফার্মেসী কে জরিমানা বদিউল আলম কাজল বুল্লা সিংহগ্রাম বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি নির্বাচিত

ভরা মৌসুমেও বাড়তি চালের দাম

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৩৭২ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক: অস্থিরতা কাটছে না দেশের চালের বাজারে। ভরা মৌসুমেও বাড়তি সব ধরনের চালের দাম। বস্তাপ্রতি বিক্রি হচ্ছে দুইশ’ থেকে আড়াশ’ টাকা বেশি দামে। বিক্রেতারা বলছেন, মিলারদের কারসাজিতে চালের দাম বেড়েছে। একইভাবে বাড়তি দামে বিক্রি হচ্ছে তেল, আলু ও পেঁয়াজের দাম। টমোটা ও বরবটি বেশি বিক্রি হলেও অধিকাংশ সবজি ৫০ টাকার মধ্যেই বিক্রি হচ্ছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে কেজিতে ১০ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে আলু ও পেঁয়াজের দাম। কুয়াশার কারণে বাজারে আলু-পেঁয়াজের সরবরাহ কম থাকায় দাম বেড়েছে বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। শীতের সবজি ফুলকপি, বাঁধাকপি, শিম, মুলা ও শালগমের সরবরাহ বাড়ায় সবজির দাম কিছুটা হলেও স্বস্তি ফিরে এসেছে। প্রায় এক মাস ধরে বেশিরভাগ সবজির কেজি ৩০ টাকার মধ্যে পাওয়া যাচ্ছে। তবে পাকা টমেটো ও বরবটির দাম এখনো বেশ চড়া।

আজ শুক্রবার (১৮ ডিসেম্বর) রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা গেছে, পুরাতন আলুর কেজি বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪৫ টাকা, যা গত সপ্তাহে কিছুটা কমে ৩৫ থেকে ৪০ টাকায় নেমেছিল। এর আগে পুরাতন আলুর কেজি ছিল ৪৫ থেকে ৫০ টাকা। আর নতুন আলু বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৬০ টাকা।

আলুর মতো ভোগাচ্ছে পেঁয়াজও। দীর্ঘদিন ধরে অস্বস্তিতে রাখা পেঁয়াজের দাম গত সপ্তাহে কিছুটা কমেছিল। কিন্তু তা এক সপ্তাহের বেশি স্থির হয়নি। গত সপ্তাহে যে দেশি পেঁয়াজের কেজি ৫০ টাকায় নেমেছিল, তার দাম বেড়ে এখন ৬০ থেকে ৭০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে। তবে আমদানি করা পেঁয়াজ আগের মতো ৩০ থেকে ৪০ কেজিতে পাওয়া যাচ্ছে।

সবজির বাজার ঘুরে দেখা গেছে, গত সপ্তাহের মতো শিমের কেজি বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ৩০ টাকা। ফুলকপি ও বাঁধাকপির পিস বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ৩০ টাকা। মুলা ১০ থেকে ১৫ টাকা কেজি পাওয়া যাচ্ছে। ৪০ টাকার মধ্যে পাওয়া যাচ্ছে বড় লাউ। গাজর বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৫০ টাকা কেজি। বেগুনের কেজি ৩০ থেকে ৪০ টাকা, উস্তের কেজি বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৫০ টাকা, ধেড়স ৪০ থেকে ৫০ টাকা, পটল ৩০ থেকে ৪০ টাকা বিক্রি হচ্ছে।

বেশিরভাগ সবজির দাম কমলেও এখনো চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে পাকা টমেটো ও বরবটি। পাকা টমেটোর কেজি গত সপ্তাহের মতো বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ১০০ টাকা। আর বরবটি গত সপ্তাহের মতো ৬০ থেকে ৮০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

তবে সবজির দাম কমে যাওয়ায় বিপাকে পড়েছেন চাষিরা। অনেকে সবজি বিক্রি করে খরচের টাকা ওঠাতে পারছেন না।

দাম বেড়েছে ডিমের। পাঁচ থেকে ১০ টাকা পর্যন্ত দাম বেড়েছে এক ডজন লাল ডিম বিক্রি হচ্ছে ৯০ থেকে ৯৫ টাকা, হাঁসের ডিম ১১০ থেকে ১২০ টাকা, সোনালী মুরগির ডিম ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা। আগের দামেই বিক্রি হচ্ছে সোনালী ও ব্রয়লার মুরগির।

এসব বাজারে অপরিবর্তিত আছে চিনি, চাল, মাংস, মসলাসহ অন্যান্য পণ্যের দাম। বাজারে প্রতি কেজি খাসির মাংস বিক্রি হচ্ছে ৭৮০ থেকে ৮০০ টাকা, বকরির মাংস ৭২০ থেকে ৭৫০ টাকা, গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ৫৫০ থেকে ৫৮০ টাকা, মহিষ ৫৮০ থেকে ৬০০ টাকা।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর