1. admin@amarsylhetnews.com : admin2020 :
  2. zoshim98962@gmaiil.com : আমার সিলেট ডেস্ক : আমার সিলেট ডেস্ক
  3. amarsylhetnews@gmail.com : আমার সিলেট নিউজ : আমার সিলেট নিউজ
  4. editor@amarsylhetnews.com : Amar SylhetNews : Amar SylhetNews

    শুক্রবার, ৩০ জুলাই ২০২১, ০৪:৩০ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
হবিগঞ্জ শহরের কালীবাড়ি ক্রস রোডের বাসিন্দা তন্বী রায় এর পরলোকগমন সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলার প্রথম আইসিটি জেলা এম্বাসেডর হলেন মনির হোসেন নবীগঞ্জে ঐতিহ্য বাহী ইনাতগঞ্জ বাজার জামে মসজিদের ৩১ বছরের বিরোধ পরিসমাপ্তি চুনারুঘাটে সৈয়দ লিয়াকত হাসান বড় ভাইয়ের ইন্তেকাল বিশিষ্ট লেখক অধরা আলো ”সহ সাধারণ সম্পাদক নতুন কুঁড়ি সাহিত্য সম্ভার”র মনোনীত চুনারুঘাটের চা বাগানে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কাজ করছে শ্রমিকরা চুনারুঘাটে বজ্রপাতে মৃত ব্যক্তির পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান যুক্তরাষ্ট্রে ঈদ পূর্ণমিলনীতে হবিগঞ্জবাসীর মিলনমেলা হবিগঞ্জে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ বিক্রির অপরাধে দুই ফার্মেসী কে জরিমানা বদিউল আলম কাজল বুল্লা সিংহগ্রাম বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি নির্বাচিত

ভারতীয় ডা. দেবী শেঠির সতর্ক বার্তা : করোনার তৃতীয় ঢেউ আরও ভয়াবহ হবে

  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ২২ জুন, ২০২১
  • ৩৭ বার পড়া হয়েছে

বিশেষ প্রতিবেদনক : করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ দ্বিতীয় ঢেউয়ের তুলনায় ৩০ শতাংশ বেশি তীব্র হতে পারে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন ভারতের অন্যতম শীর্ষ হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. দেবী শেঠি। এ জন্য তৃতীয় ঢেউ প্রসঙ্গে আরও বেশি সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ দ্বিতীয় ঢেউয়ের তুলনায় ৩০ শতাংশ বেশি তীব্র হতে পারে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন ভারতের অন্যতম শীর্ষ হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. দেবী শেঠি। এ জন্য তৃতীয় ঢেউ প্রসঙ্গে আরও বেশি সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। তিনি বলেন, কবে তৃতীয় ঢেউ আসবে, তা আগে থেকে কেউই হয়তো বলতে পারবে না। তবে সেপ্টেম্বরের পর যে কোনো সময় এই ধাক্কার জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে। তবে করোনার তৃতীয় ঢেউয়ে পরিস্থিতি আরও খারাপ হবে কিনা, তা নিয়ে কোনো মন্তব্য করেননি দেবী শেঠি।

আগামী ছয় থেকে আট সপ্তাহের মধ্যে ভারতে করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ আসতে পারে। এমনটিই হুশিয়ারি দিয়েছেন দেশটির অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স (এইমস)। ভারতে করোনার নতুন ধরন ডেল্টা প্লাসের কারণে এ উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন প্রতিষ্ঠানটি। করোনার নিত্যনতুন ভ্যারিয়েন্ট প্রসঙ্গেও উদ্বেগ প্রকাশ করে দেবী শেঠি বলেন, করোনা মহামারি মোকাবিলায় ভারতে আরও অনেক বেশি আইসিইউ বেড, অক্সিজেন বেড ও পেডিয়াট্রিক বেডের প্রয়োজন। পর্যাপ্ত ভ্যাকসিন না থাকা নিয়ে ভারতে যে হাহাকার চলছে, তা আগামী এক মাসের মধ্যেই সমাধান হবে বলে আশা করেন তিনি। ভারতের এই হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ আরও বলেন, অ্যাসিম্পটোমেটিক রোগীরা সাধারণত করোনাপরবর্তী শারীরিক জটিলতায় ভোগেন না। যারা আইসিইউতে ছিলেন বা স্টেরয়েড দিতে হয়েছে, এমন রোগীর ক্ষেত্রে কিছু জটিলতা দেখা যেতে পারে। তবে কী করে এ সমস্যা মেটানো যায়, তা নিয়ে গবেষণা চলছে। তৃতীয় ঢেউ রুখতে টিকা নেওয়াকেই একমাত্র উপায় বলে মনে করছেন তিনি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর